একুশে পদক প্রাপ্তি প্রফেসর ড. বিকিরণ প্রসাদের আজীবন সম্মাননা অনুষ্ঠান

আব্দুল আউয়াল মুন্না, চট্টগ্রাম প্রতিনিধিঃ

প্রফেসর বিকিরণ প্রসাদ বড়ুয়ার হীরক জয়ন্তী ও আজীবন সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানে ড. অনুপম সেন-
বিকিরণ আজ তার আলোয় আলোকিত ।
(১১ফেব্রুয়ারী) ২০২০ সোমবার চট্টগ্রাম হোটেল সৈকত কনভেনশন হলে বিশিষ্ঠ শিক্ষাবিদ, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক পদার্থবিদ্যা বিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. বিকিরণ প্রসাদ বড়ুয়া ৭৫জম্ম জয়ন্তী ও আজীবন সম্মাননা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় । হীরক জয়ন্তী ও আজীবন সম্মাননা পর্ষদ কতৃক আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন সমাজবিজ্ঞানী ও প্রিমিয়ার ইউনিভার্সিটির ভাইস চেন্সেলর একুশে পদক প্রাপ্ত প্রফেসর ড. অনুপম সেন ।
ইউএসটিসির সাবেক উপাচার্য , হীরক জয়ন্তী ও আজীবন সম্মাননা পরিষদের সভাপতি প্রফেসর ডাক্তার প্রভাত চন্দ্র বড়ুয়ার সভাপতিত্বে মুখ্য আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য , শিক্ষাবিদ প্রফেসর ড. আ আ ম স আরোফিন সিদ্দিকি ।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের উপদেষ্ঠা মন্ডলীর সদস্য একুশে পদক প্রাপ্ত শিক্ষাবিদ অধ্যক্ষ অবঃ ড. প্রনব কুমার বড়ুয়া, বিজিসি ট্রাষ্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. সরোজ কান্তি সিংহ হাজারী ।
অনুষ্ঠানে বিভিন্ন ধর্মীয়গন্থ থেকে বানী পাঠ করার পর উব্দোধনী সংগীত পরিবেশন করেন ত্রিদিব বড়ুয়া রানা । শুরু হয় জয়ন্তী নায়ক একুশে পদকে মনোনীত ড. বিকিরন প্রসাদ বড়ুয়াকে অতিথিবৃন্দ ও বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ হতে ফুল , ক্রেষ্ঠ ও উপহার প্রদান করা হয় । অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন হীরক জয়ন্তী , আজীবন সম্মাননা পর্ষদ এর সাধারন সম্পাদক অধ্যক্ষ শেখ এ রাজ্জাক রাজু । জয়ন্তী নায়কের জীবনী পাঠ করেন ভাস্কর ডি কে দাশ মামুন ।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে সমাজ বিজ্ঞানী অনুপম সেন বলেন ড. বিকিরণ প্রসাদ বড়ুয়া জ্ঞানে ও গুনে একজন পরিপূর্ন মানুষ ,তিনি সারাজীবন শিক্ষার আলো দিয়ে গেছেন । সমাজের জন্য দেশের জন্য আজ অবদান রেখেছেন বলেই গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয়া প্রধানমন্ত্রী রাস্ট্রীয় সম্মাননা একুশে পদকের জন্য মনোনীত করেছেন । তিনি বলেন একমাত্র শিক্ষার মাধ্যমেই দেশ ও জাতির মঙ্গল ও উন্নতি করা যায় ।

অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বাংলাদেমশ বৌদ্ধ ভিক্ষু মহাসাভার সভাপতি সদ্ধর্মজ্যোতি সুনন্দ মহাথের, ভদন্ত বুদ্ধপ্রিয় মহাথের, মহামান্য সংঘরাজের আর্শীবানী পাঠ করে শোনান অধ্যাপক উপানন্দ মহাথের , প্রকৌশলী মৃনাল কান্তি বড়ুয়া, অধ্যক্ষ তরুন বড়ুয়া, প্রধান শিক্ষক বিমল বড়ুয়া, প্রকৌশলী পুলক কান্তি বড়ুয়া, ডাক্তার দিবাকর বড়ুয়া, জয়কেতু বড়ুয়া , সনত তালুকদার, দিপক তালুকদার, কবি বিশ্বপ্রতাপ বড়ুয়া, প্রধান সমন্বয়কারী প্রদীপ কুমার বড়ুয়া আনন্দ , সমন্বয়কারী প্রনব রাজ বড়ুয়া, বাংলাদেশ বৌদ্ধ কৃষ্টি প্রচার সংঘের চট্টগ্রাম অঞ্চলের সাধারন সম্পাদক প্রকৌশলী পরিতোষ বড়ুয়া, বিশিষ্ঠ হোমিও চিকিৎসক ডাক্তার পরিতোষ বড়ুয়া, বিমান বড়ুয়া, এডভোকেট সাতকড়ি বড়ুয়া, বিনয় ভুষন বড়ুয়া, উরকিরচর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি দুলাল কান্তি বড়ুয়া, সাধারন সম্পাদক শফিউল আলম , মুসলিম , হিন্দু, বৌদ্ধ খৃষ্ঠান সম্প্রিতি পরিষদের আহবায়ক দিদারুল আলম , সাহেদা আকতার জাহান চৌধুরী , প্রকাশনা সম্পাদক অধ্যক্ষ শিমুল বড়ুয়া , বাংলাদেশ বৌদ্ধ কৃষ্ঠি প্রচার সংঘ যুব এর সভাপতি পুস্পেন বড়ুয়া কাজল , অধ্যাপক সুব্রত বড়ুয়া প্রমুখ ।

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদশে সরকার ঘোষতি ২০২০ সালরে একুশে পদকরে জন্য মনোনতি ব্যক্তত্বি, চট্টগ্রাম বশ্বিবদ্যিালয়রে পর্দাথবদ্যিা বভিাগরে সাবকে চয়োরম্যান, খ্যাতমিান শক্ষিাবদি, গবষেক ও বীর মুক্তযিোদ্ধা প্রফসের ড.বকিরিণ প্রসাদ বড়ুয়ার ৭৫তম জন্মদনি উপলক্ষে হীরক জয়ন্তী উদযাপন ও আজীবন সম্মাননা র্পষদ অনুষ্ঠান আজ ১১ ফব্রেুয়ারি বকিলে ৩টায় চট্টগ্রাম রেলস্টশেনস্থ মোটলে সকৈতে অনুষ্ঠতি হয়েছে।

অনুষ্ঠানে সভাপত্বি করনে হীরক জয়ন্তী উদযাপন ও আজীবন সম্মাননা র্পষদের আহবায়ক ইউএসটরি সাবকে উপার্চায ডা. প্রফসের প্রভাত চন্দ্র বড়ুয়া। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থতি ছলিনে প্রফসের ড. অনুপম সেন। চম্পাকলি বড়ুয়ার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবকে উপার্চায ড.আ আ ম স আরফেনি সদ্দিকি, প্রফসের কনক কান্তি বড়ুয়া, প্রফসের ড. মোহাম্মদ নুরুল মোস্তফাসহ বভিন্নি সুগঠনরে সদস্যবৃন্দ। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থতি ছিলেন ২১শে পদক প্রাপ্ত ড. প্রণব বড়ুয়া, সাউর্দান বশ্বিবদ্যিালয়রে মাননীয় উপার্চায প্রফসের ড.মোহাম্মদ নুরুল মোস্তফা, বি জি সি ট্রাস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের উপার্চায প্রফসের ড.সরোজ কান্তি হাজারী।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলনে, গুনীজনকে সম্মান জানানো হলে সমাজে গুনীজন তৈরী হবে । ড. বিকিরণ প্রসাদ বড়ুয়া শিক্ষকতার পাশাপাশি দশে ও সমাজরে জন্য অনকে কাজে গুরুত্বর্পুণ অবদান রখেছেনে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *